ইরানের বিরুদ্ধে আগ্রাসনের অভিযোগ সৌদি যুবরাজের
বাংলারিপোর্টার.কম
মঙ্গলবার, ০৭ নভেম্বর ২০১৭

সৌদির ক্রাউন প্রিন্স মোহাম্মদ বিন সালমান ইরানের বিরুদ্ধে ‘সরাসরি সামরিক আগ্রাসনের’ অভিযোগ করেছেন। হুথি বিদ্রোহীদের মিসাইল সরবরাহের মাধ্যমে এটি করেছে বলে তিনি অভিযোগ করেন। খবর বিবিসির।


মঙ্গলবার সৌদি প্রেস এজেন্সি যুবরাজের উদ্ধৃতি দিয়ে জানিয়েছে, হুথি বিদ্রোহীদের কাছে ইরানের ক্ষেপণাস্ত্র সরবরাহ তেহরান সরকারের সরাসরি সামরিক আগ্রাসনের শামিল।


তিনি ব্রিটিশ পররাষ্ট্রমন্ত্রী বরিস জনসনের সঙ্গে টেলিফোনে আলাপকালে এসব কথা বলেন।


যুবরাজ সালমান বলেন, এটাকে যুদ্ধ হিসেবে দেখা যেতে পারে।


উল্লেখ্য, শনিবার সৌদি আরবের রাজধানী রিয়াদে কিং খালিদ আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের উত্তর পাশে ইয়েমেন থেকে ছোড়া ক্ষেপণাস্ত্র আকাশেই ধ্বংস করে দেয় সৌদি বাহিনী। এ হামলার সঙ্গে ইরান জড়িত বলে অভিযোগ করে সৌদি সরকার।


তবে হুথি বিদ্রোহীদের অস্ত্র সরবরাহের বিষয়টি অস্বীকার করেছে তেহরান।


ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী মোহাম্মদ জাভেদ জারিফ সোমবার বলেছেন, সৌদি আরবের ‘যুদ্ধের আগ্রাসন’ এবং ‘আঞ্চলিক দেশগুলো খোঁচানোর’ মতো বিষয়গুলো মধ্যপ্রাচ্যের জন্য হুমকিস্বরূপ।


এদিকে হিউম্যান রাইটস ওয়াচ জানিয়েছে, বেসামরিক বিমানবন্দরে নির্বিচারে এ ধরনের মিসাইল হামলা স্পষ্টত যুদ্ধাপরাধ।


তবে ইয়েমেনে সহায়তা পাঠানোর ক্ষেত্রে কড়াকড়ি আরোপ না করতে সৌদি আরবকে আহ্বান করেছে তারা। জাতিসংঘ জানিয়েছ, ইয়েমেনে প্রায় ৭০ লাখ লোক দুর্ভিক্ষের হুমকিতে রয়েছে। আর নয় লাখ লোক কলেরায় আক্রান্ত হয়েছে।